Advertisements

School Vacation: প্রবল বৃষ্টিতে জলমগ্ন শহর, স্কুলগুলিতে ছুটি ঘোষণা, কোথায় ঘটেছে এই ঘটনা!

Shreya Maitra Chatterjee

Shreya Maitra Chatterjee

Follow

কখনো অতিরিক্ত গরমের জন্য কখনো আবার অতিরিক্ত বৃষ্টির জন্য বিদ্যালয় বন্ধ করতে বাধ্য করা হয়েছে, কারণ অতিরিক্ত বৃষ্টিতে জনজীবন ব্যাহত হচ্ছে। আমরা কিছুদিন আগেই দেখেছি গোটা ভারতবর্ষ জুড়ে যে পরিমাণ গরম পড়েছিল, তাতে বেশ কিছু জায়গাতেই গরমের ছুটি বাড়ানো হয়েছিল। কারণ তাতে অসুস্থ হয়ে পড়ছিল পড়ুয়ারা, এত গরমে বিদ্যালয় গিয়ে ক্লাস করাটা সত্যিই খুব অসুবিধাজনক হয়ে যাচ্ছিল, কিন্তু এবারে আর গরম নয়, এবার ঠিক উল্টো অতিরিক্ত বৃষ্টির কারণে আবারো ছুটি দেওয়া হল বিদ্যালয়।

আমরা কিছুদিন আগেই দেখেছি দিল্লিতে এবং তারপর মহারাষ্ট্রে অতিরিক্ত বৃষ্টিতে জনজীবন ব্যাহত হচ্ছে, রবিবার রাত থেকেই রাজ্যে প্রচুর বৃষ্টিপাত হয়েছে, যার ফলে ট্রেন লাইনসহ রাস্তাঘাটের বিভিন্ন জায়গায় জলে ডুবে গেছে, যেদিকেই তাকানো হচ্ছে শুধু জল আর জল। এইরকম অবস্থাতেই সোমবার অর্থাৎ সপ্তাহের প্রথম দিন রীতিমতো যান চলাচল ব্যাহত হয়েছে।

শহরের বিভিন্ন জায়গাতেই জল জমে যাচ্ছে, তুলনামূলকভাবে অনেকটাই আসতে চালানো হচ্ছে। যানবাহনকে, এমনকি বহু জায়গার রেল লাইনও জলের তলায় ডুবে গেছে। সকাল থেকে একের পর এক ট্রেন বাতিল করা হয়েছে, ঘুর পথে চালানো হচ্ছে বহু ট্রেনকে। মুম্বাই রাজ্যের একমাত্র যান চলাচলের উপায় হচ্ছে ট্রেন ট্রেনকে এ রাজ্যে লাইফ লাইন বলা হয়, প্রতিদিন বহু মানুষ যাতায়াত করেন, এখানে আর সকাল থেকে বৃষ্টির কারণে কার্যত বন্ধ হতে চলেছে ট্রেন পরিষেবা, মুম্বাই বিমানবন্দরের ল্যান্ড পর্যন্ত করতে পারেনি, অনেক বিমান, ঘুরিয়ে দেওয়া হচ্ছে বেশ কিছু বিমানকে।

মুম্বাইয়ের একাধিক সরকারি এবং বেসরকারি স্কুলগুলিতে ছুটি ঘোষণা করে দেওয়া হয়েছে, ছুটি বাতিল করা হয়েছে জরুরি পরিষেবার সঙ্গে যারা যুক্ত আছেন। তাই সেই সমস্ত কর্মচারীদের পথে নেমে পরিষেবা আবারও স্বাভাবিক করার চেষ্টা করা হচ্ছে, স্থানীয় আবহাওয়া দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে এই পরিস্থিতি আপাতত জারি থাকবে।

এই অবস্থায় মুম্বইয়ের একাধিক সরকারি এবং বেসরকারি স্কুলে ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। ছুটি বাতিল করা হয়েছে, জররি পরিষেবার সঙ্গে যুক্ত আধিকারিক এবং কর্মীদের। পথে নেমে পরিষেবা স্বাভাবিক করার চেষ্টা করছেন পুরসভার কর্মীরা। স্থানীয় আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে, এই পরিস্থিতি আপাতত জারি থাকবে। আগামী তিন থেকে চারদিন ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে।

আবহাওয়া দপ্তর থেকে জানানো হচ্ছে যে, ৮ই জুলাই থেকে ১২ই জুলাই পর্যন্ত মহারাষ্ট্র, পুনে, নাসিক এবং সাতারা, কোলহাপুর জেলাতেও ভারী বৃষ্টির সতর্কতা জারি করা হয়েছে। পাশাপাশি ছত্রপতি সম্ভাজিনগর, জালনা, লাতুর, ধারাশিব এবং নান্দেড জেলার বিভিন্ন স্থানে বজ্রপাত ঝড়ের সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

Shreya Maitra Chatterjee

আমি শ্রেয়া চ্যাটার্জী। বর্তমানে Hoophaap-এর লেখিকা। লাইফস্টাইল এবং বিনোদনমূলক লেখা আপনাদের কাছে ...

Trending

Video

Shorts

whatsapp [#128] Created with Sketch.

Join

Follow