Hoop ViralHoop Video

Short Film: গল্পের পরতে পরতে ছড়ানো উত্তেজনার স্পর্শ, ছোটদের থেকে লুকিয়ে দেখুন এই শর্টফিল্ম

Advertisements

সোশ্যাল মিডিয়ার (Social Media) বাড়বাড়ন্ত হওয়ার পরে নতুন নতুন বিনোদন মাধ্যমের সঙ্গে পরিচিত হয়ে উঠেছে মানুষ। ভিন্ন ভাষার বিনোদনের পাশাপাশি বাংলা সংষ্কৃতির সঙ্গেও নতুন ভাবে পরিচিত হচ্ছে মানুষ। আগেকার থেকে বর্তমানে বাংলা বিনোদনও অনেক বদলে গিয়েছে। বাংলা সিনেমা, গানে যেমন বদল এসেছে তেমনি অনেক নতুন কনটেন্টও যুক্ত হয়েছে। তেমনি একটি কনটেন্ট হল শর্ট ফিল্ম (Short Film) বা আর্ট ফিল্ম।

ওয়েব সিরিজে যেমন অ্যাডাল্ট কনটেন্টের রমরমা শুরু হয়েছে তেমনি হিন্দি ক্রাইম শর্ট ফিল্মেও এই নতুন বিনোদনের খোঁজ পেয়েছে দর্শক। আসলে দর্শকদের একাংশ বেশ উপভোগ করেন ১৮ বছরের ঊর্দ্ধের কনটেন্ট। এ ধরণের বোল্ড কনটেন্ট সর্বত্র উপলব্ধ না হওয়ায় কিছু কিছু প্ল্যাটফর্ম শুধুমাত্র এই ধরণেরই কনটেন্ট তৈরি করে। ইউটিউবেও একটু খোঁজ করলেই এই ধরণের হিন্দি আর্ট ফিল্ম খুঁজে পাওয়া যাবে। এই ছবিগুলিতে যারা অভিনয় করেন তারাও নিজেদের তেমন ভাবেই তৈরি করেন।

Read More: দামি বাইকের সব ফিচার্স রয়েছে কম বাজেটের এই ই-স্কুটারে, মাত্র ৯৯৯ টাকায় চলছে বুকিং

সম্প্রতি একটি আর্ট ফিল্ম বেশ চর্চায় উঠে এসেছে নেট মাধ্যমে। আর্ট ফিল্মটির নাম ‘কিল দিল’। ৪২ মিনিটের ভিডিওতে অধিকাংশ সময়ই জুড়ে রয়েছে ঘনিষ্ঠ দৃশ্য যা একান্তে বসে উপভোগ করাই বাঞ্ছনীয়। পরিবারের সকলের সঙ্গে বসে দেখা সম্ভব নয় এই ধরণের আর্ট ফিল্ম। একান্ত সময়ে বসে দেখার জন্যই বানানো এই ঘরানার বিনোদন।

Read More: অষ্টম পাশ যোগ্যতায় গুরুত্বপূর্ণ পদে চাকরির সুযোগ, এই ঠিকানায় পাঠাতে হবে আবেদনপত্র

শেমারু টিভি নামে ইউটিউব চ্যানেলে এক বছর আগে শেয়ার করা হয়েছে ভিডিওটি। মুহূর্তের মধ্যে ভিউ হয়ে গিয়েছে ১৫ লক্ষের বেশি। নেটিজেনরা যে বেশ উপভোগ করছেন আর্ট ফিল্মটি তা বোঝা যাচ্ছে স্পষ্ট। আসলে নেট পাড়ায় বিভিন্ন ভাষার বিভিন্ন ধরণের ভিডিও শেয়ার করা হয়, যেগুলি নেটিজেনদের চোখে পড়া মাত্রই ছড়িয়ে যায় সর্বত্র। হয়ে যায় ভাইরাল। এই শর্ট ফিল্মটিও একই গোত্রের যা দর্শকরা বেশ পছন্দ করছেন। কার্যত প্রায় প্রতি মিনিটে লাফিয়ে লাফিয়ে ভিউ বাড়ছে এই আর্ট ফিল্ম বা শর্ট ফিল্মে।

Nirajana Nag

আমি নীরাজনা নাগ। HoopHaap-এর একজন সাংবাদিক। বিগত চার বছর ধরে এই পেশার সঙ্গে যুক্ত রয়েছি। নিজের লেখার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাঠকদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই