whatsapp channel

‘বালিকা বধূ’ প্রত্যুষা পেলেন না সুবিচার, কেস লড়তে গিয়ে নাজেহাল প্রয়াত অভিনেত্রীর মা-বাবা

পাঁচ বছর আগে অন্তিম লোকে পাড়ি দিয়েছিলেন ‘বালিকা বধূ’ প্রত্যুষা ব্যানার্জী (pratyusha Banerjee)। মুম্বই পুলিশ প্রত্যুষার পোস্টমর্টেম করার পর উঠে আসে আত্মহত্যার তত্ত্ব। এখনও অবধি প্রত্যুষার কেস চলছে। এই কেসের…

Avatar

HoopHaap Digital Media

পাঁচ বছর আগে অন্তিম লোকে পাড়ি দিয়েছিলেন ‘বালিকা বধূ’ প্রত্যুষা ব্যানার্জী (pratyusha Banerjee)। মুম্বই পুলিশ প্রত্যুষার পোস্টমর্টেম করার পর উঠে আসে আত্মহত্যার তত্ত্ব। এখনও অবধি প্রত্যুষার কেস চলছে। এই কেসের ব্যাপারে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে কাস্টিং ডিরেক্টর বিকাশ গুপ্তা (vikas gupta) ও অভিনেত্রী কামিয়া পাঞ্জাবি (kamya panjabi)-কে। সবই চলছে নিয়ম মেনে। কিন্তু আদরের মেয়েকে হারিয়ে প্রত্যুষার বাবা-মা আজ অসহায়।

প্রত্যুষার মৃত্যুর পর কেস লড়তে লড়তে সর্বস্বান্ত হয়ে গেছেন প্রত্যুষার বাবা শঙ্কর ব্যানার্জী (shankar Banerjee)। প্রত্যুষা নিজের পরিবারকে আর্থিক দিক থেকেও সহায়তা করতেন। কিন্তু তাঁর মৃত্যুর পর ব্যানার্জী পরিবারে নেমে এসেছে দারিদ্র্য। সম্প্রতি একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রত্যুষার বাবা জানিয়েছেন, চিকিৎসা অথবা সংসারের সাধারণ সামগ্রী কেনার জন্য তাঁদের কাছে একটি পয়সাও অবশিষ্ট নেই। প্রত্যুষার মৃত্যু তাঁদের কাছে একটি ঝড়ের মতো যা তাঁদের সবকিছুকে হেলায় উড়িয়ে নিয়ে চলে গেছে।

একসময় ফ্ল্যাটের টপ ফ্লোরে থাকা ব্যানার্জীরা আজ এক কামরার একটি ভাড়া বাড়িতে থাকেন। প্রত্যুষাই বাবা-মাকে টপ ফ্লোরের ফ্ল্যাটের ব্যবস্থা করে দিয়েছিলেন। কিন্তু প্রত্যুষার মৃত্যুর পর আজ সবকিছুই অতীত। চারিদিকে দেনায় ডুবে রয়েছেন প্রত্যুষার বাবা। সংসার চালানোর জন্য প্রত্যুষার মা একটি চাইল্ড কেয়ার সেন্টারে কাজ করেন যা থেকে তাঁর রোজগার খুব সীমিত। কিন্তু তাতেই কোনোমতে সংসার চলছে বলে জানিয়েছেন শঙ্করবাবু। কিন্তু এত অভাবের মধ্যেও নিজের গল্প লেখেন শঙ্করবাবু, ভাবেন, কোনোদিন যদি আবারও সুদিন ফিরে আসে! এই সাহিত্যচর্চাটুকু অভাবের সংসারে বিলাসিতা, তা জানেন তিনি। কিন্তু, কি করবেন এক অসহায় লেখক? কলম যে থামে না!

দেনার দায়, অভাবের সংসার, আধপেটা খেয়ে থাকা , সবকিছুর মধ্যেও প্রত্যুষার বাবা জানিয়েছেন, আমৃত‍্যু তাঁরা প্রত্যুষার জন্য বিচার চেয়ে মামলা লড়বেন। ভগবান একদিন নিশ্চয়ই মুখ তুলে তাকাবেন, প্রত্যুষা বিচার পাবেন।

প্রত্যুষার মামলায় মূল অভিযুক্ত প্রত্যুষার বয়ফ্রেন্ড রাহুল রাজ সিং (Rahul Raj singh) এখন জামিনে মুক্ত রয়েছেন। তিনি বিয়ে করেছেন অভিনেত্রী সালোনি শর্মা (saloni sharma)-কে।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by PRATYUSHA BANERJEE (@pratyushaxsweet)

Avatar