whatsapp channel

Viral: তর্কবিতর্ক উপেক্ষা করে কলকাতার ব্যস্ত রাস্তায় স্বনির্ভরতার পথে ‘স্মার্ট দিদি’ নন্দিনী

কলকাতার অফিস টাইমে খাওয়া দাওয়া মানেই রাস্তার দু'ধারে প্রচুর খাবারের সন্ধান। ছোট ছোট দোকানে পেয়ে যাবেন, ভাত থেকে শুরু করে আপনার পছন্দ মতন নানান জিনিস ইন্ডিয়ান চাইনিজ ঝাল, মুড়ি, তেলেভাজা…

Avatar

Shreya Chatterjee

কলকাতার অফিস টাইমে খাওয়া দাওয়া মানেই রাস্তার দু’ধারে প্রচুর খাবারের সন্ধান। ছোট ছোট দোকানে পেয়ে যাবেন, ভাত থেকে শুরু করে আপনার পছন্দ মতন নানান জিনিস ইন্ডিয়ান চাইনিজ ঝাল, মুড়ি, তেলেভাজা ফল সবকিছু মিলিয়ে এক বিশাল ব্যাপার-স্যাপার আর এই খাবার দাবারের রেস্টুরেন্টে যদি পেয়ে যান, বাঙালি খাবার আর সাথে যদি পেয়ে যান সুন্দরী রাধুনী তাহলে তো কথাই নেই।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ার ভাইরাল হয়েছে নন্দিনীদের আপনিও নিশ্চয়ই নামটি শুনেছেন, ইউটিউব, ফেইসবুক টুইটার ভরে গেছে। নন্দিনীদির নানান রকম কার্যকলাপের নন্দিনী গাঙ্গুলী। সম্প্রতি তিনি তার রান্না খাইয়ে সবাইকে বেশ চমকে দিচ্ছেন, আর ব্যাস তাকে ঘিরেই শুরু হয়ে গেছে। টিশার্ট আর জিন্স পরা এই অসাধারণ সুন্দরী মহিলার অসাধারণ হাতের রান্না খেয়ে সকলেই প্রায় কুপোকাত।

উইকেন্ডের কলকাতা আর অফিস টাইম এর কলকাতা দুটোর মধ্যে কিন্তু বেশ ফারাক আছে। কলকাতা মানেই কিন্তু শুধু বেড়াতে যাওয়ার জায়গা নয়, কলকাতা মানে রয়েছে সোম থেকে শনিবারের অফিসপাড়ার ব্যস্ততা। সম্প্রতি এই ব্যস্ত অফিস পাড়ায় ভাইরাল হয়েছেন স্মার্ট দিদি নন্দিনী। তার হাতের রান্না খাইয়ে সবাইকে রীতিমতন বশ করে রেখেছেন। এই দিদিকে দেখলে একটা কথাই মাথায় আসে মেয়েরা চাইলে কি না করতে পারে। বাবা-মার সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে অফিস পাড়ায় দোকান দিয়ে আজ সবার চোখের মনি নন্দিনী।

আপনিও যদি অফিসে গিয়ে একেবারে বাড়ির রান্নার স্বাদ পেতে চান তাহলে একবার ঘুরে আসতে পারেন বীনাফুড সেন্টার থেকে, এটি কলকাতার তিন নম্বর কয়লা ঘাট স্ট্রিট ইস্টার্ন রেলওয়ে অফিসের পেছনে। নিরামিষ থেকে ফিস থালি, চিকেন থেকে মাটন থালির সবই পাবেন অল্প টাকা খরচ করেই। ঠিকানা যখন জেনেই ফেলেছেন, তাহলে আর দেরি না করে এরপর টিফিন বাড়ি থেকে না নিয়ে গিয়ে চটপট খেয়ে ফেলুন নন্দিনীদির হোটেল থেকে।

Avatar

আমি শ্রেয়া চ্যাটার্জী। বর্তমানে Hoophaap-এর লেখিকা। লাইফস্টাইল এবং বিনোদনমূলক লেখা আপনাদের কাছে তুলে ধরি। অনলাইনের সুবাদে রান্নার রেসিপি, রূপচর্চা, কুকিং টিপস, বেড়ানোর জায়গার সন্ধান এগুলো যেমন জানা প্রয়োজন, ঠিক তেমনি মনোরঞ্জনের জন্য শর্টফিল্ম, সিরিজ এগুলোরও সমান গুরুত্ব। সমস্ত খবরকেই লেখার মাধ্যমে তুলে ধরার চেষ্টা করি। অনেক ধন্যবাদ সকলক