Hoop PlusBengali Serial

‘যখন প্রয়োজন ছিল…’ নাম না করে সৌমিতৃষাকে তীব্র আক্রমণ তন্বীর!

Advertisements

সিনেমা মুক্তি পাওয়ার পরেও বিতর্ক থেকে মুক্তি নেই সৌমিতৃষা কুণ্ডুর (Soumitrisha Kundu)। এতদিন ‘মিঠাই’ নামেই জনপ্রিয়তা ছিল তাঁর। ছোটপর্দার গণ্ডি পেরিয়ে সদ্য বড়পর্দার নায়িকা হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছেন তিনি। সেই সঙ্গে নিজেকে জড়িয়ে ফেলেছেন বিতর্কে। বেশ কিছুদিন ধরেই অভিযোগ শোনা যাচ্ছে, সৌমিতৃষার নাকি ‘অহংকার’ বেড়েছে। তাঁর কিছু মন্তব্য নিয়ে ব্যাপক শোরগোল পড়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়। পালটা উত্তর দিতে গিয়েও শেষমেষ পিছিয়ে এসেছেন অভিনেত্রী। এবার ফের বিষ্ফোরণ ঘটল তন্বী লাহা রায়ের (Tonni Laha Roy) একটি পোস্টে।

সৌমিতৃষার প্রথম ছবি ‘প্রধান’। মিঠাই সিরিয়াল শেষ হওয়ার দু দিন আগেই সুখবরটা জানা গিয়েছিল। কিন্তু অদ্ভূত ভাবে সিরিয়ালের নায়িকার এত বড় একটি সাফল্যে মিঠাই পরিবারের সদস্যদের তরফে আসেনি কোনো শুভেচ্ছা বার্তা। একমাত্র উদয় প্রতাপ সিং এবং ছোট্ট অনুমেঘা কাহালি বার্তা পাঠিয়েছে সৌমিতৃষার জন্য। নায়ক আদৃত রায় অনস্ক্রিন মেয়ে অনুমেঘার প্রথম ছবির জন্য শুভেচ্ছা জানালেও একই দিনে মুক্তিপ্রাপ্ত সৌমিতৃষার ছবির জন্য কোনো মন্তব্য করেননি। এমনকি প্রিয় ‘দেবদা’র জন্যও কোনো শুভেচ্ছা বার্তা অন্তত সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেননি আদৃত।

'যখন প্রয়োজন ছিল...' নাম না করে সৌমিতৃষাকে তীব্র আক্রমণ তন্বীর!

এর মাঝেই ইনস্টাগ্রামে তন্বী অর্থাৎ ‘মিঠাই’ এর তোর্সার একটি স্টোরি নিয়ে চাঞ্চল্য ছড়ালো নেট পাড়ায়। কারোর নাম না করেই তিনি তীব্র কটাক্ষ করে লিখেছেন, প্রিয় অভিনেতা/ অভিনেত্রী, যখন প্রয়োোজন ছিল ফলো করে রেখেছিলেন। এখন অনেক দূর পৌঁছে যাওয়ায় আনফলো করে দেওয়া… পোস্টে আনকোলাব করে দেওয়া। আরও অনেক দূর পৌঁছোন…! জানি নিজের প্রোফাইল নিজের ইচ্ছে, তাহলে এত বছর ফলো করে রেখেছিলেন? কোলাব করে রেখেছিলেন? যার গায়ে লাগবে তার জন্যই পোস্টটা। তাও চাইব আরও ভালো হোক, ভগবান মঙ্গল করুক’।

নেটিজেনদের একাংশের দাবি, নাম না করে সৌমিতৃষাকেই বিঁধেছেন তন্বী। এক সময় টেস বুড়িকে ইনস্টাগ্রামে ফলো করলেও বর্তমানে আর সৌমিতৃষার ফলোয়িং তালিকায় নেই তিনি। কোলাব করা পোস্টগুলি থেকেও নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন মিঠাই রানী। মিঠাই এর আরেক অভিনেতা ধ্রুব সরকারের সঙ্গে কোলাব পোস্ট থাকলেও তাঁকেও আনফলো করে দিয়েছেন সৌমিতৃষা। তবে আদৌ মিঠাইকেই উদ্দেশ্য করে এই স্টোরি দিয়েছেন কিনা সে ব্যাপারে অবশ্য কোনো মন্তব্য করেননি তন্বী।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Tonni Laha Roy (@roytonni)

Nirajana Nag

আমি নীরাজনা নাগ। HoopHaap-এর একজন সাংবাদিক। বিগত চার বছর ধরে এই পেশার সঙ্গে যুক্ত রয়েছি। নিজের লেখার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাঠকদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই