Hoop Life

Lifestyle: আমের খোসা ফেলে না দিয়ে জেনে নিন উপকারি দিকগুলি

Advertisements

আম খেয়ে আমের খোসা ফেলে না দিয়ে, আপনি যদি জানেন, এই আমের খোসার কতখানি উপকারিতা, তাহলে কিন্তু আপনি আর কাল থেকে আমের খোসা ফেলে দেবেন না। গ্রীষ্মকাল মানেই বাড়িতে প্রতিদিন ব্যাগ ভর্তি করে পাকা আম আসছে কিন্তু এই আমের খোসা আপনি নিশ্চয়ই ডাস্টবিনে ফেলে দিচ্ছেন, কিন্তু যদি জানেন, এই আমের খোসা আপনার শরীরকে ঠিক কতটা পুষ্টি দিতে পারে, সেটা জানার পর কিন্তু আমের খোসা আর ডাস্টবিনে পড়ে থাকবে না।

কিন্তু প্রশ্ন হল এই আমের খোসাকে কিভাবে খাবেন – আমের খোসাকে খাওয়ার জন্য এই খোসাকে খুব ভালো করে রোদে শুকিয়ে গুঁড়ো করে নিতে হবে, তারপর প্রতিদিন যদি এক চামচ করে গরম দুধের মধ্যে দিয়ে খেতে পারেন, তাই আর দেরি না করে চলুন দেখে নি, আমের খোসা আপনার শরীরের জন্য ঠিক কতখানি উপকারী।

১) হজমে সাহায্য করে আমের খোসা বর্তমান যুগে অতিরিক্ত খাবার খাওয়ার জন্য বা অতিরিক্ত স্পাইসি খাবার খাওয়ার জন্য অনেকেই হজমের সমস্যায় ভোগেন, আপনারা হয়তো বিশ্বাস করবেন না, যে আমের খোসা আপনাদের পরিপাকে সাহায্য করতে পারে।

২) হার্ট ভালো রাখতে সাহায্য করে এই আমের খোসা। আমরা অনেকেই জানিনা যে আমের খোসা আমাদের হার্ড কতটা ভালো রাখতে সাহায্য করে যাদের হার্টের সমস্যা রয়েছে, তারা কিন্তু এইভাবে আমের খোসা খেতে পারেন।

৩) ত্বক ভালো রাখতে সাহায্য করে আমের খোসার মধ্যে রয়েছে প্রচুর পরিমানে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, তাই আম খাওয়ার পাশাপাশি যদি আমের খোসাকেও ওপরে যেভাবে বললাম সেভাবে খেতে পারেন, তাহলে আপনার ত্বকের আর কোন সমস্যা থাকবে না।

৪) আমের খোসার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে দূর করতে সাহায্য করে, বর্তমানে আমাদের নতুন প্রজন্মের মধ্যে একটুতেই শরীর খারাপ হওয়ার একটা প্রবণতা দেখা দেয়, অর্থাৎ তাদের মধ্যে ক্রমশ রোগ প্রতিরোধ করার ক্ষমতা কিন্তু একেবারেই চলে যাচ্ছে।

৫) ওজন কমাতে সাহায্য করে এই আমের খোসা, আপনি কি জানেন? আপনি যদি ডায়েট করেন, তাহলে অবশ্যই আপনার খাদ্য তালিকাতে আমের খোসা রাখুন, এটি কিন্তু আপনার জন্য উপকারী।

Lifestyle: আমের খোসা ফেলে না দিয়ে জেনে নিন উপকারি দিকগুলি

Shreya Maitra Chatterjee

আমি শ্রেয়া চ্যাটার্জী। বর্তমানে Hoophaap-এর লেখিকা। লাইফস্টাইল এবং বিনোদনমূলক লেখা আপনাদের কাছে তুলে ধরি। অনলাইনের সুবাদে রান্নার রেসিপি, রূপচর্চা, কুকিং টিপস, বেড়ানোর জায়গার সন্ধান এগুলো যেমন জানা প্রয়োজন, ঠিক তেমনি মনোরঞ্জনের জন্য শর্টফিল্ম, সিরিজ এগুলোরও সমান গুরুত্ব। সমস্ত খবরকেই লেখার মাধ্যমে তুলে ধরার চেষ্টা করি। অনেক ধন্যবাদ সকলক