whatsapp channel

Lifestyle: ঘুমিয়ে স্বপ্ন দেখার মধ্যেই লুকিয়ে রয়েছে বড় ইঙ্গিত, রাতারাতি বদলে যেতে পারে ভাগ্য

স্বপ্ন (Dream) নিয়ে চর্চা বহুদিনের। ঘুমিয়ে ঘুমিয়ে মানুষ বহু রকমের স্বপ্ন দেখে থাকে। অনেক সময় সে সব স্বপ্নের অর্থই উদ্ধার করা যায় না। বিজ্ঞান বলে, মানুষের অবচেতন মনই স্বপ্নের জন্ম…

Avatar

Nirajana Nag

স্বপ্ন (Dream) নিয়ে চর্চা বহুদিনের। ঘুমিয়ে ঘুমিয়ে মানুষ বহু রকমের স্বপ্ন দেখে থাকে। অনেক সময় সে সব স্বপ্নের অর্থই উদ্ধার করা যায় না। বিজ্ঞান বলে, মানুষের অবচেতন মনই স্বপ্নের জন্ম দেয়। মানুষ অবচেতনে যা ভাবে সেটাই ধরা দেয় স্বপ্ন হয়ে। তবে জ্যোতিষ শাস্ত্রে বলা হয়, স্বপ্নের অর্থ রয়েছে। স্বপ্নে কিছু কিছু এমন লক্ষণ দেখা যায় তা অনেক কিছুর ইঙ্গিত দেয়। কখনো তা আগত সুসময়ের আভাস দেয়, আবার কখনো দুঃসময়ের ইঙ্গিত হয়ে আসে স্বপ্ন।

কথায় বলে, ভোরের স্বপ্ন নাকি সত্যি হয়। জ্যোতিষ বিশেষজ্ঞরা বলছেন, একথা সত্য। সকালে দেখা স্বপ্ন সত্যি হয়ে আসে জীবনে এবং বিশেষ ইঙ্গিতও বহন করে। জ্যোতিষ শাস্ত্রে বলা হয়, স্বপ্নে কিছু লক্ষণ দেখা মানে তা আভাস দেয় জীবনে সুসময়ের আগমন হতে চলেছে। সংসারে মা লক্ষ্মীর কৃপা দৃষ্টি পড়ার আভাস মেলে স্বপ্নেই।

Lifestyle: ঘুমিয়ে স্বপ্ন দেখার মধ্যেই লুকিয়ে রয়েছে বড় ইঙ্গিত, রাতারাতি বদলে যেতে পারে ভাগ্য

স্বপ্নে আবর্জনা দেখলে স্বাভাবিক ভাবেই মেজাজ বিগড়ে যেতে পারে। কিন্তু জ্যোতিষ শাস্ত্র বলে, স্বপ্নে আবর্জনা দেখা মানে তা শুভ লক্ষণ। এমন স্বপ্ন দেখার অর্থ হল, জীবনে খুব শীঘ্রই আর্থিক উন্নতি হতে চলেছে। স্বপ্নে ছোট বাচ্চা দেখার অর্থ হল জীবনে বড় কোনো সুখবর আসতে চলেছে। অনেক দিন ধরে আটকে থাকা কোনো কাজও উতরে যেতে পারে। স্বপ্নে সবুজ মাঠ দেখলে তার অর্থ হল খুব শীঘ্রই আর্থিক সৌভাগ্য বাড়তে চলেছে।

স্বপ্নে যদি সোনার অলঙ্কার দেখা যায় তাহলে সেটা শুভ বলে মনে করা হয়। এর অর্থ হল জীবনে মা লক্ষ্মীর কৃপা দৃষ্টি পড়তে চলেছে। স্বপ্নে সবুজ গাছপালা, বাগান দেখার অর্থ হল জীবনে সমৃদ্ধি আসতে চলেছে। অনেকে স্বপ্নে জলে ভরা কলসি দেখতে পান। এর অর্থ হল, সংসারে খুব শীঘ্রই আর্থিক উন্নতি হতে চলেছে। তবে এমন স্বপ্ন দেখলে কাউকে তা বলা উচিত নয়।

Disclaimer: বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ এবং মতামতের ভিত্তিতে লেখা হয়েছে প্রতিবেদনটি। ব্যক্তিবিশেষে এর ফল হতে পারে ভিন্ন।

Avatar

আমি নীরাজনা নাগ। HoopHaap-এর একজন সাংবাদিক। বিগত চার বছর ধরে এই পেশার সঙ্গে যুক্ত রয়েছি। নিজের লেখার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাঠকদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই