Hoop PlusTollywood

একই দিনে পর্দায় মা-মেয়ে, অনুমেঘাকে শুভেচ্ছা জানালেও সৌমিতৃষাকে এড়ালেন আদৃত!

Advertisements

এবারের ডিসেম্বর সিনেপাড়ার জন্য জমজমাট হতে চলেছে। ক্রিসমাস উপলক্ষে মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে একগুচ্ছ বাংলা ছবি, যাদের মধ্যে বিশেষ ভাবে উল্লেখযোগ্য ‘প্রধান’ এবং ‘কাবুলিওয়ালা’। এই দুই ছবির হাত ধরেই সিনেমায় পা রাখছেন ছোটপর্দার দুই জনপ্রিয় মুখ সৌমিতৃষা কুণ্ডু (Soumitrisha Kundu) এবং অনুমেঘা কাহালি (Anumegha Kahali)। ছোট্ট অনুমেঘা অবশ্য শিশুশিল্পী। কয়েকটি সিরিয়ালে অভিনয় করতে না করতেই মিঠুন চক্রবর্তীর সঙ্গে বড়পর্দায় অভিনয়ের সুযোগ পেয়ে গিয়েছে সে। এবার অনুমেঘার প্রথম বড় প্রোজেক্টের জন্য শুভেচ্ছা বার্তা পাঠালেন অনস্ক্রিন বাবা আদৃত রায় (Adrit Roy)।

আগামী ২২ ডিসেম্বর একসঙ্গে পর্দায় আসছে প্রধান এবং কাবুলিওয়ালা। সেই সঙ্গে বক্স অফিসের লড়াইয়ে নামবে এক সময়ের অনস্ক্রিন মা-মেয়ে মিঠাই এবং মিষ্টি। এদিন কাবুলিওয়ালা ছবির একটি পোস্টার সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেন আদৃত। পোস্টারে দেখা যাচ্ছে, মিঠুন রূপী কাবুলিওয়ালার হাত ধরে হেঁটে যাচ্ছে ছোট্ট ‘মিনি’ ওরফে অনুমেঘা। মিষ্টি পোস্টারটি শেয়ার করে অনস্ক্রিন মেয়ে মিষ্টির জন্য একটি আদুরে বার্তা দিয়েছেন আদৃত।

একই দিনে পর্দায় মা-মেয়ে, অনুমেঘাকে শুভেচ্ছা জানালেও সৌমিতৃষাকে এড়ালেন আদৃত!

লিখেছেন, ‘ছোট্ট মিষ্টি অনুমেঘা! ‘কাবুলিওয়ালা’র জন্য তোমাকে অনেক শুভেচ্ছা। সারা শহরে পোস্টার এবং হোর্ডিংয়ে তোমাকে দেখে আমি খুব খুশি, তাও আবার আমার প্রিয় অভিনেতা, এক এবং অদ্বিতীয় মহাগুরু। তোমার ছবি প্রথম দিনেই দেখার ইচ্ছা আছে।’ অনুমেঘাও ‘বাবাই’ এর পোস্টটি শেয়ার করে লিখেছেন, ‘অনেক ধন্যবাদ আদৃত আঙ্কেল! তোমাকে খুব ভালোবাসি’।

অন্যদিকে মিষ্টি মা অর্থাৎ সৌমিতৃষাকেও কিন্তু ভোলেনি অনুমেঘা। একটি মিষ্টি ভিডিও শেয়ার করে প্রধান এর জন্য সে শুভেচ্ছা জানিয়েছে সৌমিতৃষাকে। কিন্তু প্রাক্তন নায়িকার জন্য এখনো পর্যন্ত কোনো শুভেচ্ছা বার্তাই আসেনি আদৃতের তরফে। একই দিনে প্রথম বার সিনেমায় পা রাখছে তাও দুই সহ অভিনেত্রী। একজনকে শুভেচ্ছা জানালেও অন্যজনকে অদ্ভূত ভাবে এড়িয়ে গেলেন আদৃত। বিষয়টা অনুরাগীদেরও নজর এড়ায়নি। মিঠাই চলাকালীনই আদৃত সৌমিতৃষার মধ্যে তীব্র মনোমালিন্যর খবর জায়গা করে নিয়েছিল সংবাদ শিরোনামে। অনেকের প্রশ্ন, এখনো কি তাঁদের মধ্যে ঠাণ্ডা লড়াই বজায় রয়েছে?

Nirajana Nag

আমি নীরাজনা নাগ। HoopHaap-এর একজন সাংবাদিক। বিগত চার বছর ধরে এই পেশার সঙ্গে যুক্ত রয়েছি। নিজের লেখার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাঠকদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই