Bengali SerialHoop Plus

Jagadhatri: পরকীয়া-কূটকাচালি লাগে না, গল্পই আসল, ‘জগদ্ধাত্রী’কেই আপন করল দর্শকরা

টিআরপি (TRP) যেকোনো সিরিয়ালের (Television Serial) কাছেই অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। নম্বরের সামান্য বাড়া কমা সিরিয়ালের ভাগ্য পর্যন্ত নির্ধারণ করতে পারে। তাই দর্শকদের মন জয় করতে তাদের চাহিদা মতোই গল্প আনছে বেশিরভাগ ধারাবাহিক নির্মাতারা। পুরনো হোক বা শুরু হতে চলা নতুন সিরিয়াল, সবেতেই একই রকম পরকীয়ার অ্যাঙ্গেল ঢোকানো হচ্ছে। দর্শকরা পরকীয়া, কূটকাচালি পছন্দ করে, এমনই ধারণা করে পরপর প্রায় সব সিরিয়ালেই এই প্লট ঢুকিয়ে দেওয়া হচ্ছে। ব্যতিক্রম শুধু ‘জগদ্ধাত্রী’ (Jagadhatri)।

জি বাংলার (Zee Bangla) এই সিরিয়াল সদ্য পূরণ করেছে এক বছর। বেশিরভাগ ধারাবাহিকের ক্ষেত্রেই দর্শকদের একটা অভিযোগ থাকে। প্রোমো এক রকম দেখানো হয়, আর গল্প হয় আরেক রকম। শুরুটা কিছুটা প্রোমোর মতো চললেও কিছুদিন যেতে না যেতেই সেই নায়ক নায়িকার মধ্যে এন্ট্রি নিয়ে নেয় তৃতীয় ব্যক্তি। কিন্তু জগদ্ধাত্রী এখানেই ব্যতিক্রম। প্রোমোতে যেমনটা দেখানো হয়েছিল, স্পেশ্যাল ক্রাইম ব্র্যাঞ্চ অফিসার জ্যাস স্যান্যাল সিরিয়ালেও তেমন ভাবেই ঘর বার দুটোই সামলাচ্ছে আর অপরাধীদের ঘোল খাওয়াচ্ছে।

অন্যান্য সিরিয়ালের মতো এখানে জগদ্ধাত্রী আর স্বয়ম্ভূর মধ্যে কোনো তৃতীয় ব্যক্তি এসে ঢোকেনি। প্রথম থেকেই জগদ্ধাত্রীর প্রতি স্বয়ম্ভূর ভালোবাসা একই রকম রয়েছে। উৎসবও তাদের মধ্যে চিড় ধরাতে পারেনি। আর এই মন্ত্রে ভর করেই একটানা ছক্কা হাঁকিয়ে চলেছে জগদ্ধাত্রী। বিগত কয়েক সপ্তাহ ধরে বাংলা সেরার স্থান রয়েছে এই সিরিয়ালের দখলে। যেখানে জি এর ‘নিম ফুলের মধু’, ‘কার কাছে কই মনের কথা’ কিংবা স্টার জলসার ‘অনুরাগের ছোঁয়া’ সবেতেই পরকীয়া প্রাধান্য পাচ্ছে, সেখানে ভিন্ন ধরণের গল্প দেখিয়ে সেরা হচ্ছে জগদ্ধাত্রী।

দর্শকরাও প্রশংসায় ভরিয়ে দিচ্ছে এই সিরিয়ালকে। অন্যান্য অধিকাংশ ধারাবাহিকের থেকে জগদ্ধাত্রী সিরিয়ালে নায়িকা অনেকটাই আলাদা। কার্যত নায়কের জায়গা নিয়ে নিয়েছে জ্যাস স্যান্যাল। একসঙ্গে অনেকগুলি ব্যতিক্রমী পয়েন্ট থাকায় দর্শকদের প্রিয় তালিকায় জায়গা করে নিচ্ছে জগদ্ধাত্রী।