whatsapp channel

এই তরুণীর প্রেমেই হাবুডুবু খেয়েছিলেন খ্যাতনামা বাঙালি ক্রিকেটার, চিনতে পারলেন ইনি কে!

সোশ্যাল মিডিয়া (Social Media) বর্তমানে নিত্যদিনের অত্যন্ত জরুরি এক অংশ হয়ে উঠেছে। নেট মাধ্যমে সক্রিয় নন, এমন মানুষ এখন খুঁজে পাওয়া মুশকিল। বিশেষ করে তারকারা খুবই সক্রিয় থাকেন সোশ্যাল মিডিয়ায়।…

Avatar

Nirajana Nag

সোশ্যাল মিডিয়া (Social Media) বর্তমানে নিত্যদিনের অত্যন্ত জরুরি এক অংশ হয়ে উঠেছে। নেট মাধ্যমে সক্রিয় নন, এমন মানুষ এখন খুঁজে পাওয়া মুশকিল। বিশেষ করে তারকারা খুবই সক্রিয় থাকেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। বিভিন্ন প্ল্যাটফর্ম গুলিকে মাধ্যম বানিয়েই অনুরাগীদের সঙ্গে যোগযোগ বজায় রাখেন তারা। পাশাপাশি বিনোদন জগতেও দিন দিন বাড়ছে সোশ্যাল মিডিয়ার গুরুত্ব।

প্রিয় তারকাদের ব্যাপারে খুঁটিনাটি তথ্য জানতে কে না ভালোবাসে? পর্দার পছন্দের মানুষটা বাস্তবে কেমন, তা জানার আগ্রহ কমবেশি সকলেরই থাকে। বিশেষ করে তারকাদের ছোটবেলার ছবি (Childhood Photo) খুব ভাইরাল হয় নেট মাধ্যমে। অনুরাগীদের আগ্রহ লক্ষ্য করে অভিনেতা অভিনেত্রীরাও মাঝে মাঝেই ভাগ করে নেন তাদের ছোটবেলার নানান স্মৃতি জড়ানো ছবি। সম্প্রতি এমনি একটি ছবি ভাইরাল হয়েছে নেট মাধ্যমে।

ছবিটি এক তরুণীর। হলুদ রঙের সালোয়ার কামিজ, লাল ওড়না জড়িয়ে দুহাতে নাচের মুদ্রা দেখিয়ে পোজ দিয়েছেন তিনি। মেকআপহীন মুখেও অপরূপ স্নিগ্ধতা। এই তরুণী দেশের খ্যাতনামা ওড়িশি নৃত্যশিল্পী। তাঁর রূপেই মুগ্ধ হয়েছিলেন দেশের প্রাক্তন ক্রিকেট অধিনায়ক তথা বাঙালির প্রিয় ‘দাদা’ সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। হ্যাঁ, এই তরুণীই ‘ম্যাডাম’ ডোনা গঙ্গোপাধ্যায়। তাঁর কম বয়সী ছবি এটি। সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজেই এই ছবিটি শেয়ার করেছেন তিনি, যা দেখে আবারো ঝড় উঠেছে পুরুষ হৃদয়ে।

এই ছবিতে ডোনার পাশে দেখা গিয়েছে তাঁর নৃত্যগুরু স্বর্গীয় কেলুচরণ মহারাজকে। ছবিটি শেয়ার করে তিনি লিখেছেন, ‘আমার গুরুজির সঙ্গে তরুণী আমি’। প্রসঙ্গত, পাশের বাড়ির মেয়ে ডোনার প্রেমে পড়েছিলেন তরুণ সৌরভ। কিন্তু দুই পরিবারের মধ্যে ছিল বিবাদ। ১৯৯৬ সালের অগাস্ট মাসে লুকিয়ে আইনি বিয়ে সেরে ফেলেন দুজনে। পরে বাড়িতে জানাজানি হতে ১৯৯৭ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে সামাজিক বিয়ে দেওয়া হয় সৌরভ ডোনার। মেয়ে সানা বিদেশে পড়াশোনা করে চাকরি করছেন লন্ডনে। দীর্ঘ ২৭ বছর সুখে দাম্পত্য সম্পর্ক উপভোগ করছেন তাঁরা।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Dona Ganguly (@dona_ganguly_39)

Avatar

আমি নীরাজনা নাগ। HoopHaap-এর একজন সাংবাদিক। বিগত চার বছর ধরে এই পেশার সঙ্গে যুক্ত রয়েছি। নিজের লেখার মাধ্যমে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাঠকদের কাছে পৌঁছে দিতে চাই